অনলাইন ডেস্কঃ চীনের উহানে থাকা ৩৬১ বাংলাদেশিকে নিয়ে আসতে বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি বিশেষ উড়োজাহাজ বোয়িং ৭৭৭-৩০০ ঢাকা ছেড়েছে। শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টা ৫ মিনিটে বিমানটি ঢাকা ত্যাগ করে। তাদের নিয়ে রাতে ২টার দিকে ওই ফ্লাইটটি ঢাকায় ফিরে আসার কথা রয়েছে।

উহান থেকে দেশের ফেরার পর স্বজনদের সঙ্গে দেখা করার সুযোগ পাবেন না বাংলাদেশি শিক্ষার্থীরা। বিমানবন্দর থেকে তাদের নিয়ে যাওয়া হবে আশকোনা হজক্যাম্পে। সেখানে রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর)-এর কোয়ারেন্টাইন ব্যবস্থায় তাদের রাখা হবে। স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য ১৪ দিন পর্যন্ত তাদের সেখানে রাখা হতে পারে।

চীন ফেরত বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য পরীক্ষা প্রসঙ্গে আইইডিসিআরের পরিচালক ডা. মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা বলেন, ‘আশা করছি এই শিক্ষার্থীদের মধ্যে করোনা আক্রান্ত কেউ নেই। এরপরও আমাদের সব ধরনের প্রস্তুতি রয়েছে। হজক্যাম্পে তাদের রাখা হবে। সেখানে আমাদের চারটি মেডিক্যাল টিম থাকবে। তাদের সেখানে পর্যবেক্ষণে রাখা হবে।’ স্বাস্থ্য পরীক্ষাসহ ১৪ দিন পর্যবেক্ষণে রাখার পর এসব শিক্ষার্থী বাড়ি ফিরতে পারবেন বলেও তিনি জানান।

এদিকে সন্ধ্যায় নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম লিখেছেন, ৩৬১ বাংলাদেশির বাইরে আরও ১৫০ বাংলাদেশি শিক্ষার্থী রয়েছেন, যারা দেশে ফিরতে চান। তাদের ফিরিয়ে আনতেও বিকল্প চেষ্টা করা হচ্ছে।

চীনে এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসে ২১৩ জন মারা গেছে। এ ছাড়া এ ভাইরাসে ৯ হাজার ৭শ' জন আক্রান্ত হয়েছে। প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের ঘটনায় বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বৈশ্বিক জরুরি অবস্থা ঘোষণা করেছে।

Post a Comment

 
Top